Search

বিশেষ সংখ্যা ।। ভয় ভৌতিকে ।। অঞ্জলি দে নন্দী , মম


কাটা মুন্ডুর ফুটবল



অঞ্জলি দে নন্দী, মম



গ্রামের ছেলের দল নদীর বুকে গ্রীষ্মের বিকালে ফুটবল খেলে। এর আশেপাশেই মরা পোড়ানো হয়। তরুণদল ভয়ডর আদৌ নেই। বয়স্কদের মানা কানে তোলে না। বলে আর হাসে - ভূত! কুসংস্কার। দেখতে তো কোনোদিন পেলাম না।


                     একদিন অমাবস্যা রাত। ছেলের দল দূর গ্রাম থেকে যাত্রা দেখে মাঝরাতে নদীর বালি পার হয়ে বাড়ি ফিরছিল। ওরা স্বচক্ষে দেখলো যে একদল ভূত অর্থাৎ কঙ্কাল, তারা একটি কাটা নর মুন্ডু নিয়ে ফুটবল খেলছে। অন্ধকারে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছিল না। তবে সেরাতে আকাশে মেঘ ছিল। মাঝে মধ্যেই বিদ্যুৎ চমকাচ্ছিল। সেই আলোতেই ছেলের দল ঐ দৃশ্য দেখলো। ওদের দেখে ভূত খেলোয়াড়দল হাঁ উ মা উ কাঁ উ, যাঁ


কে পাঁ উ তাঁ কে খাঁ উ......সমস্বরে এই বলে বলে বলে ওদের দিকে দৌড়ে আসতে লাগলো। ওরা তো প্রাণপণ ছুটে এসে যে যার বাড়িতে ঢুকল।


                     তারপর থেকে ওরা আর ওখানে খেলতো না। আর এই ঘটনাটি তারা তাদের পরিবারের সকলকে বলল। সবাই বলল যে ওই জায়গায় তো ভূতেদের আদি বাস।

3 views0 comments