top of page
Search

১৮ ই মে সংখ্যা ।। অনুবাদ সাহিত্য ।। তাপস গুপ্ত


ল্যাটিন আমেরিকার কয়েকটি কবিতার অনুবাদ ও অনুবাদ সংক্রান্ত দু চার কথা: -


তাপস গুপ্ত


পর্ব: ১০


খ্রীষ্টের জন্মের বহু বছর আগেই দক্ষিণ আমেরিকা জুড়ে ছিল অ্যাজটেক, মায়া আর ইনকা সভ্যতা। এই ইনকা সভ্যতার মধ্যে দিয়েই পাবলো নেরুদা খুঁজে পেয়েছিলেন পুরো মহাদেশের কণ্ঠস্বর ও প্রতিধ্বনি। উত্তরের মেক্সিকো পর্যন্ত ছিল অ্যাজটেক সভ্যতা। মেক্সিকোর প্রান্ত থেকে মধ্য আমেরিকা পর্যন্ত মায়া বা মাইয়া সভ্যতা আর পেরুকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছিল ইনকা সভ্যতার রহস্যময় জগৎ।

নিকারাগুয়া কবি ক্লারিবেল অ্যালিগ্রিয়া র সঙ্গে ড্যানিয়েলের কথোপকথনে উঠে আসবে এই সভ্যতা হারানোর দীর্ঘশ্বাস এবং একই সঙ্গে একে ফিরে পাবার আশা - উজ্জ্বল আলোকময় অনুভূতি। আমরা সাক্ষাৎকারটির অবশিষ্ট অংশে ফিরে যাই:


ড্যানিয়েল: এখনকার নিকারাগুয়ায় লেখালেখি সম্পর্কে তোমার কি ধারণা? এখানকার কবিরা কেমন আছেন?


ক্ল্যারিবেল: আমার এখানে বেশ ভালো কবি বন্ধুরা রয়েছেন।


ড্যানিয়েল:এখানে স্যান্ডিনিস্টা ( নিকারাগুয়ার বিপ্লব)র সময়ে অনেক কবি ছিলেন -- তাঁদের বেশির ভাগই কি চলে গেছেন?


ক্ল্যারিবেল: তারা আছেন কিন্তু কমে গেছেন স্যান্ডিনিস্টার বিজয়ের পর থেকে। আমার মনে হয় এই ঘটনা এল সালভাদরে ঘটেছে যা এখানে ঘটেছে। উদাহরনে বলতে পারি, আমি কবি হুয়াজো মিক্সো কে পছন্দ করি, গদ্যকারদের মধ্যে হোরাসিও ক্যাস্টেলানোস, জাকিস্তা ইস্কুদস আমার প্রিয় খুব, এঁরা রয়েছেন।কিন্তু বাকি যাঁরা হারিয়ে গেছেন,তাঁরা জানেন না কোথায় পৌঁছতে হবে; তাঁদের রাগ তাঁদের মোহভঙ্গ ঘটিয়েছে।আমি এখনও মনে করি আমাদের অনুসন্ধান প্রয়োজন। নিকারাগুয়া এবং এলসালভেদর উভয়েরই।

ড্যানিয়েল: কি ধরণের অনুসন্ধান?


ক্ল্যারিবেল: সত্তা বা পরিচয়ের অনুসন্ধান, তুমি একমত নও?


ড্যানিয়েল: হ্যাঁ প্রকৃতপক্ষে, এটি একটি চিন্তার ব্যাপার -- শুধু সাহিত্যিক বৃত্তেই নয়, সাধারণ ক্ষেত্রেও। কয়েকদিন আগে লস এঞ্জেলসে একটি সভায় অংশগ্রহণ করেছিলাম সেখানে ম্যানলিও আর্গুয়েটা এবং রোকে ডালটনের ছেলে জুয়ান ডালটনের সঙ্গে দেখা হয়েছিল। অনুষ্ঠানটি ছিল আমেরিকাবাসী এল সালভাদরিয়ানদের নিয়ে: দুটো সংস্কৃতি, এক দেশ। এটি পুরোটাই ছিল নিজেদের পরিচয় সংক্রান্ত। এটা মনে হয় সমাজের প্রতিটি বৃত্তের মানুষকে সচেতনভাবে উপলব্ধি করতে হয়েছে যে, who we are -- বিশেষ করে আমেরিকার।এবং আমি নিশ্চিত ভাবেই বলতে পারি সেন্ট্রাল আমেরিকার কবি সাহিত্যিকরা একই ভাবনায় ভাবিত হচ্ছেন।আমরা আমাদের সাক্ষাৎকারটি শুরু করতে চেয়েছি এই বলে যে, আমরা কে? তোমাকে এভাবে তাহলে জিজ্ঞেস করতে পারি এই আইডেন্টিটি ক্রাইসিস বা পরিচয় সংকট কি সব সময় রয়েছে?



ক্ল্যারিবেল:এটি এখন আরও বেশি। যখন আমরা বিপ্লবের মধ্যে ছিলাম তখন আমরা বিপ্লবের মধ্যে নিজেদের পরিচয় গেঁথে নিয়েছিলাম। কিন্তু এখন নৌকা ডুবে যাচ্ছে। তোমাদের প্রজন্মের কাছে সময়টা আরও কঠিন।


ড্যানিয়েল: তুমি কি মনে করো অনুসন্ধানের আরও গভীরে যাওয়া উচিত?


ক্ল্যারিবেল: গভীর সন্ধান -- কিন্তু কিছু বেশ চমৎকার জিনিস আনবে। আমাদের হয়তো কয়েক বছর অপেক্ষা করতে হবে --কিন্তু আমি মনে করি কিছু ভালো হবে। আমাদের শিকড়ের দিকে আরো গভীর দৃষ্টি দেওয়া উচিত। যুদ্ধের সময় আমাদের সময় ছিল না -- আমরা সর্বহারার পরিচয়ে চিহ্নিত হয়েছিলাম। এখন অনেক সচেতন পদ্ধতিতে আরও এগোতে পারি -- অধ্যায়নে জানতে পারি আমরা কে, ভাস কনসিলোর্স যেমন বলেছিলেন, " একটি সুন্দর মহাজাগতিক জাতি আমরা, শুধুমাত্র ভারতীয় শিকড় নয় রয়েছে স্প্যানিশ মূল, এই সবকিছু নিয়ে আমরা। "




এবারে অনুবাদে থাকল ক্ল্যারিবেল অ্যালিগ্রিয়ার

কবিতা:


অর্ফিয়ুস


তোমার গান দাও

অর্ফিয়ুস

তোমার শব্দ

তোমার নকল বীণা,

যার তন্ত্রী জুড়ে

রয়েছে আমার সত্তার তন্তু।


আমাকে নামতেই হবে

মৃতদের রাজ্যে

এবং আমাকে জাগাবে প্রিয়

প্রিয় সে জাদুকর।



(চলবে)

23 views0 comments

Comments


bottom of page